সংবাদ শিরোনাম:
টাঙ্গাইলে একইসাথে দুই করোনা যোদ্ধার জন্মদিন উদযাপন এমপি মমতা হেনা লাভলীর টাঙ্গাইলে বন্যার্তদের মাঝে ত্রান বিতরণ সার্ক মানবাধিকার ফাউন্ডেশন, টাঙ্গাইল জেলা শাখার নতুন কমিটি এমপি হিরোর বিরুদ্ধে সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা লাগানোর অপচেষ্টার অভিযোগ টাঙ্গাইলে ছাত্রলীগ কর্তৃক বৃক্ষরোপণ কর্মসূচী পালন মানিক শিকদারের ব্যবস্থাপনায় টাঙ্গাইলে জাতীয় শোক দিবস পালন টাঙ্গাইলের পৌর মেয়র জামিলুর রহমানে মিরনের ব্যবস্থাপনায় টাঙ্গাইলে শোক দিবস পালন প্রবাসে থেকেও থেমে নেই টাঙ্গাইলের মুজাহিদুল ইসলাম শিপন মেয়র লোকমানের আত্মস্বীকৃত খুনি এমপি সাহেবের প্রোগ্রামে সক্রিয় জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি নিজেই প্রধান অতিথী, সভাপতিত্ব করবেন কে?
জিদ করুন তাহলে আপনি জিতে যাবেন

জিদ করুন তাহলে আপনি জিতে যাবেন

জিদ করুন তাহলে আপনি জিতে যাবেন
জিদ করুন তাহলে আপনি জিতে যাবেন

আপনি কি হতাশায় ভুগছেন? বার বার ব্যর্থ হয়ে মৃত্যুর প্রহর গুনছেন? তাহলে একটু টেনশন মুক্ত থাকার উপায় খুঁজুন। পবিত্র কোরআনে আল্লাহ তায়ালা বলেন, তোমরা আমার রহমত থেকে নৈরাশ হইয়ো না। আর জ্ঞানীরা বলেন- ব্যর্থতায় সফলতার খুটি। কয় বার ব্যর্থ হয়েছেন আপনি? এক, দুই, তিন, চার, পাঁচ বার ব্যর্থ হয়েছেন এই তো? তাহলে শুনেন স্কটল্যান্ডের রাজা রবার্ট ব্রুস ৬ পরাজিত হওয়ার পরও ৭ বারে জয়ী হয়েছিলেন। তাহলে কি আবারো চেষ্টা করা যায় না?

বিপ্লবীরা তো সহজে দমে যায় না। তাদের পথ কন্টকাকীর্ণই হয়। তাই বলে কি তোমার অভিযাত্রা থেমে যাবে? আমি তারুণ্য দেখেছি চঞ্চল ও দুঃসাহিক ঐ বৃদ্ধাদের মাঝে যারা বয়সের ফ্রেমে বন্দি না থেকে নিরলস অভিযাত্রীর ভূমিকায়।

আমি তো ঐ তরুণদের বৃদ্ধ বলি যাদের হৃদয়ে শুধু সংশয় আর সন্দেহের ভয় জেঁকে বসেছে ভূতের মত। ওরা যৌবনকালেও যৌবনহীন, ওরা তরুণ হওয়া স্বর্থেও তারুণ্যের শক্তিহীন। তরুণ তো তারাই যারা বয়সের ফ্রেমে বন্দি নয়।যারা দূর্গম পথ পাড়ি দিয়ে ভয় কে করেছে জয়। যাদের দুঃসাহিক অভিযাত্রায় হার মানে যুব সমাজ তাদের আমি বৃদ্ধ বলিনা। তাদের মাঝেই খুঁজে পাই আমি যৌবনের অফুরন্ত শক্তি,তারুণ্যের উচ্ছ্বাস।

মানুষ জন্মের পর খুব অসহায় হয়। হাঁটতে গিয়েই বার বার পড়ে যায়। একদিন সে হাঁটতে শিখে। এই হাঁটতে শিখতে তাকে কত বার আচাড় খেতে হয়েছে তার কোন পরিসংখ্যান কারো কাছে নেই। ধীরে ধীরে বড় হয়। নানা ঘাত প্রতিঘাত ফেরিয়ে সে পৌছে যায় জীবনের কোন এক গন্তব্যে।

মানুষ নিরন্তর সাধনা আর অধ্যবসায়ের গুণে জগতে প্রতিষ্টা লাভ করে। দিনে দিনে যেমন শিক্ষিত হয়ে উঠা সম্ভব নয় ঠিক তেমনি কেউ রাতারাতি নশ্বর পৃথিবীতে সফল হতে পারেনা।ব্যর্থতায় সফলতার প্রথম পাঠ। পৃথিবীতে যারা সফল হয়েছে তাদের জীবন পর্যালোচনা করলে আমরা দেখতে পাই তারা ছিলেন পরিশ্রমী, অধ্যবসায়ী ও কর্মঠ। ব্যর্থতা যাদের পথ চলাকে স্তব্ধ করতে পারেনি।
যাদের গতিবেগ কেউ রোধ করতে পারে না। তাদের পথ চলা অপ্রতিরোধ্য। কোন কাজে আপনি হেরে গেছেন তাতে আপনার দোষ নেই বরং হেরে গিয়ে হাল ছেড়ে দিয়ে হতাশায় ভুগাটাই দোষ।

পারিবনা এ কথাটি বলিও না আর
কেন পারিব না তাহা ভাব একবার
পাঁচজনে পারে যাহা তুমিও পারিবে তাহা।

হাঁটিতে শিখেনা কেহ না খেয়ে আছার
জলে না নামিলে কেহ শিখেনা সাঁতার

আমরা সবাই কবিতার কথাগুলো জানি কিন্তু মানিনা। জানার নাম জ্ঞানী নয় বরং মানার নামই জ্ঞানী। চেষ্টা সাধনার মধ্য দিয়ে জগতে মানুষ সফলতা অর্জন করতে পারে।

যারা জ্ঞানী তারা ব্যর্থতায় দমে যায়না। হতাশায় ভুগে না। বরং খুঁজে বের করে ব্যর্থতার কারণ। কথায় আছে- ঠেকিলে শিখে। তাই আমি বলি ব্যর্থতায় সফলতার প্রথম পাঠ, ব্যর্থতায় সফল হওয়ার মন্ত্রের দীক্ষা দেয়। কেউ আপনাকে হারিয়ে দিয়েছে তাই বলে অভিমান করে বসে থাকলে চলবেনা। আরো একবার ঘুরে দাঁড়ান সফলতার নেশায়। জিদ থাকলে নিশ্চিত আপনি সফল হবেন।

সে যদি আমার মত মানুষ হয়ে সফলতা অর্জন করতে পারে তাহলে আমি কেন পারবনা সে জিদ যদি আপনার থাকে তাহলে আমি নিশ্চিত আপনি জয়ী হবেন।নিজের প্রতি দৃঢ় বিশ্বাস রাখা চাই। তাকে বলে আত্মবিশ্বাস। নিজেকে ছোট করে নয় বড় ভাবতে শিখুন।হৃদয়কে উদার করুন। গণতন্ত্রের প্রবক্তা আব্রাহাম লিংকন ছিলেন মুচির ছেলে। দরিদ্র হওয়ায় মাকে চিকিৎসা করাতে পারেনি।অবশেষে বিনা চিকিৎসায় করুণভাবে ইন্তেকাল করেছে।

কিন্তু তিনি তার অদম্য মনোবল, দৃঢ় প্রত্যয় আর অধ্যবসায় গুণে আমেরিকার প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছিলেন। আমেরিকার সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা ছিলেন হত দরিদ্র পরিবারের সন্তান। ছোট বেলায় তাকে জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল তুমি বড় হলে কি হবে? সে উত্তরে বলেছিল সে প্রেসিডেন্ট হবে। তার অদম্য মনোবল আর দৃঢ় বিশ্বাস তাকে প্রেসিডেন্ট বানিয়েছে।

আপনার বন্ধু ক্লাসে সবচেয়ে ভাল কিন্তু আপনি তারমত রেজাল্ট ভাল করতে পারেনা না সেটা আপনার দোষ না। আপনার দোষ হলো আপনি চেষ্টা করেন না তার চেয়ে ভালো রেজাল্ট করতে। মনে মনে বলুন সে যদি আমার মত ছাত্র হয়ে ফাস্টক্লাশ পেতে পারে আমি কেন পারবনা? জিদ করুন তাহলেই জিতে যাবেন।

ভারতের সাবেক রাষ্ট্রপতি এপিজে আবুল কালামের স্বপ্নের কথা সবার হয়তো জানা। তিনি স্বপ্ন দেখতেন আকাশ ছোঁয়ার। তিনি বলতেন, রাতে ঘুমে যেটা স্বপ্ন দেখা হয় তা স্বপ্ন নয়, স্বপ্ন তো সেটাই যা মানুষকে ঘুমাতে দেয়না।

তিনি অত্যন্ত দরিদ্র পরিবার থেকে উঠে এসেছে। ছোট বেলায় নিজের পড়ার ও পরিবারের খরচ যোগাতে স্টেশনে খবরের কাগজ বিক্রি করত। আর সেই হতদরিদ্র ছেলেটিই হয়ে উঠে ভারতের সফল রাষ্ট্রপতি।

কাজী নজরুল ইসলাম আমাদের জাতীয় কবি। টাকার অভাবে পড়ালেখা ছেড়ে চায়ের দোকানে রুটি বানাত। অধ্যবসায়, অদম্য মনোবল আর পরিশ্রমের ফলে তিনি সাধারণ থেকে হয়ে উঠেন অসাধারণ। তাই কেউ আপনাকে অমূল্যায়ন করেছে তাই বলে অভিমান নিয়ে বসে থাকলে আপনি হেরে যাবেন। কাজ করুন এবং জিদ করুন তবেই আপনি জিতে যাবেন। পরিশ্রম কারো সাথে বেঈমানি করেনা। চেষ্টা করুন বিধাতা সহযোগিতার বাড়াবেই।

লেখকঃ নুর আহমদ সিদ্দিকী

খবরটি শেয়ার করুন..

Comments are closed.




© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি ।
নির্মান ও ডিজাইন: সুশান্ত কুমার মোবাইল: 01748962840