সংবাদ শিরোনাম:
টাঙ্গাইলে একইসাথে দুই করোনা যোদ্ধার জন্মদিন উদযাপন এমপি মমতা হেনা লাভলীর টাঙ্গাইলে বন্যার্তদের মাঝে ত্রান বিতরণ সার্ক মানবাধিকার ফাউন্ডেশন, টাঙ্গাইল জেলা শাখার নতুন কমিটি এমপি হিরোর বিরুদ্ধে সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা লাগানোর অপচেষ্টার অভিযোগ টাঙ্গাইলে ছাত্রলীগ কর্তৃক বৃক্ষরোপণ কর্মসূচী পালন মানিক শিকদারের ব্যবস্থাপনায় টাঙ্গাইলে জাতীয় শোক দিবস পালন টাঙ্গাইলের পৌর মেয়র জামিলুর রহমানে মিরনের ব্যবস্থাপনায় টাঙ্গাইলে শোক দিবস পালন প্রবাসে থেকেও থেমে নেই টাঙ্গাইলের মুজাহিদুল ইসলাম শিপন মেয়র লোকমানের আত্মস্বীকৃত খুনি এমপি সাহেবের প্রোগ্রামে সক্রিয় জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি নিজেই প্রধান অতিথী, সভাপতিত্ব করবেন কে?
শামীম আল মামুন (তুহিন) এর রূপকথার পাখি ১৬-২০

শামীম আল মামুন (তুহিন) এর রূপকথার পাখি ১৬-২০

রূপকথার পাখি
শামীম আল মামুন (তুহিন)

রূপকথার পাখি-১৬
শামীম আল মামুন (তুহিন)
———————————–
আমি জেগে থেকে তোমায় ভাবি
আমি ঘুম ঘোরে তোমায় ভাবি
আমি স্বপ্নের মাঝে তোমায় ভাবি
দু:স্বপ্নেও তোমায় নিয়েই থাকি।

আমি নিশিথে তোমায় ভাবি
ভোর বিহানেও তোমায় ভাবি 
দুপুরে-বিকেলে তোমায় ভাবি
সন্ধ্যা রাতেও তোমার ছবি আঁকি।

আমার চিন্তা চেতনায় তোমায় ভাবি
আমার বিশ্বাসে-ও তোমায় ভাবি
পথে হেঁটে যেতেও তোমায় ভাবি
তোমার স্মৃতিটারে ঝাঁপটে ধরে রাখি।

আমার ভাবনাতেও তোমায় ভাবি
আমার কাজের মাঝে তোমায় ভাবি
শ্বেত শোকের সাথে তোমায় ভাবি
কোথাও তোমায় ভাবতে নেই বাকি।


17.04.2019

রূপকথার পাখি-১৭
শামীম আল মামুন (তুহিন)
—————————————
আমরা দুজন চলছি দুই কক্ষপথে
তবু-ও তোমাতে পৌঁছার প্রানান্ত প্রচেষ্টা আমার
কখনো কক্ষপখেই ঝড় উঠবে
ঘূর্ণিবায়ু লন্ডভন্ড করে দিবে কক্ষপথ তোমার।


তোমার আমার ছুটে চলা
স্বর্গের পানে ফেলে যায় এক হ্রাস তীব্র দীর্ঘশ্বাস
স্বর্গে পৌঁছবো একদিন আমরা
সেই আশে বুক বেঁধে আজকের অগণিত প্রশ্বাস।


হতাশার দূরন্ত মেঘ মালা
চলন্ত ঘোড়ার ন্যায় মনের গহীনে রোজ হেঁটেই চলে
মেঘ ফেটে বইবে বর্ষনধারা
কল্পনায় কোন একজন রোজ বারংবার তাই বলে।


ভাবনার তীর আজ ছুটে চলে
অমিমাংসিত সংলাপের টানে রূদ্ধ জীবনের দ্বার
তোমাতে আবেগের আবগাহন
তুমি ছাড়া সব শূন্য, নেই কিছু এই জীবনে আর।


18.04.2019

রূপকথার পাখি-১৮
শামীম আল মামুন (তুহিন)
————————————
তোমার ব্যস্ততায় আমি নেই
নেই তোমার শূন্যতায়
তোমায় মনের কোনে নেই আমি
নেই তোমার পূর্নতায়।

তোমার প্রাপ্তিতে নেই আমি
নেই তোমার ব্যর্থতায়
তোমার হাসির মাঝে নেই আমি
নেই তোমার কান্নায়।

তোমার চাওয়ার মাঝে নেই আমি
নেই তোমার পাওয়ায়
আমি নেই তোমার মর্ত্যে
কিংবা উড়ো যখন হাওয়ায়।

তুমি থেকেও বহুদূরে
আছো আমার চারিপাশে
তুমি হলেও অচেনা প্রিয়া
আছো অন্তর আত্মায় মিশে।


19.04.2019

রূপকথার পাখি-১৯
শামীম আল মামুন (তুহিন)
————————————————
মটরসাইকেলটার দিকে চোখ তুলে তাকালে
মনে হয় এটা যেন আমার পঙ্খিরাজ
ঘড়ির দিকে তাকিয়ে দেখি সারে নয়টা বাজে
আমার মাথায় যেন পরে বাজ।


তড়িঘড়িতে দুজোড়া জুতোর দুটো দেই পায়ে
শার্টের বোতাম থাকেই খোলা
কোন রকমে তাড়াহুড়োতে প্যান্টটা পরা হলো
এলোমেলো আমার চুল গুলা।


লাস্ট গিয়ার চেপে উড়তে উড়তে ছুটে চলি
তুমি আছো দাঁড়িয়ে একা
ভার্সিটির অযুহাতে বাড়ি থেকে বের হয়ে
করছি রোজ আমরা দেখা।


মটর সাইকেলটা নিয়ে, যাই তোমার সামনে
গর্বে ভরে আমার বুক
তুমি-ও যেন এক ঝাটকা স্নিগ্ধময় বাতাসে
পেযে গেলে এক হ্রাস স্বর্গসুখ।


মটর সাইকেলের পিছনে উঠে বসলে তুমি
ধরলে শক্ত করে জড়িয়ে আমায়
বাতাসে ভর করে যেন ‍ছুটে চলে দুর্বার সে
আয়নায় দেখি অপরূপা তোমায়।


হঠাৎ ব্রেক কষি পাগলা ঘোড়াটা যায় থেমে
আমি-ও গেলাম জেগে
মটর সাইকেল নেই আমার, কিনবোও না
চালানো না শিখে।


20.04.2019

রূপকথার পাখি-২০
শামীম আল মামুন (তুহিন)
————————————
পাখি
তুমি কই?
তোমার ছবি আঁকি
আমি অল্পতেই শঙ্কিত হই
তুমি বেরিয়ে গেলে অপেক্ষায় থাকি
নিজের মনে একলা একা করি হইচই।

তুমি
নিরাপদে ফিরবে
একলা ভাবনায় আমি
তনু, রূপারা কাঁদে নিরবে
আসিয়া, নাদিয়া আর নুসরাত রাফি
হাজারো নাম অজানা হয়ে মরছে সরবে।

তোমার 
ফেরার পথে
ভয় সাধারণ নিরাপত্তার
বাবার ভিটেমাটি দেখবার রথে
বোন হলো চাচাতো ভাইয়ের শিকার
বরের সামনে বউ ধর্ষিতা ডিসি লেকে।

আজ
পত্রিকার পাতায়
পুরোটাই ধর্ষনের কারুকাজ
বিকৃত রূচির ঘৃণ্য মানসিকতায় 
বিদগ্ধ আজ রাস্তাঘাট আমাদের সমাজ
জানি না এর সমাপ্তি হবে কখন কোথায়?

( সিঁড়ি কাব্য। অন্ত্যমিল বিন্যাস কখকখকখ। গঘগঘগঘ। ঙচঙচঙচ। ছজছজছজ। শব্দ বিন্যাস ১+২+৩+৪+৫+৬।)


21.04.2019

এটি শামীম আল মামুন (তুহিন) এর ধারাবাহিক কবিতা প্রকাশের চতুর্থ পর্ব। তার লেখা রূপকথার পাখি শিরোনামের কবিতা গুলো ৫ টি করে কবিতা ধারাবাহিক ভাবে প্রকাশ করবে দৈনিক৭১.কম। পরামর্শ দিন। সাথে থাকুন।

খবরটি শেয়ার করুন..

Comments are closed.




© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি ।
নির্মান ও ডিজাইন: সুশান্ত কুমার মোবাইল: 01748962840