সংবাদ শিরোনাম:
দ্বিতীয়বারের মতো ঢাকার সেরা অফিসার ইনচার্জ ফারুক হোসেন ‘ভোট জালিয়াতি’ তদন্তের নির্দেশ চট্টগ্রামে গলায় ছুরি ধরে গৃহবধূকে গণধর্ষণ, ধর্ষকদের বাঁচাতে কাউন্সিলরপ্রার্থী বেলালের দৌড়ঝাঁপ নারী নির্যাতন মামলায় বিজয়নগর উপজেলা ছাত্রলীগের বিবাহিত সভাপতি মাহবুব হোসেন কারাগারে দুই নবজাতকের লাশ নিয়ে হাইকোর্টে বাবা কনস্টেবলকে মারধর, শ্রমিকলীগ নেতার স্ত্রী কারাগারে অবক্ষয় থেকে তরুণ সমাজকে রক্ষা করতে চলচ্চিত্রের ব্যাপক ভূমিকা রয়েছে- তথ্যমন্ত্রী পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2020 কর কমিশনারের কার্যালয়ে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০২০ ৯ দিনে করোনা জয়ী তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ
সন্তানের সামনে জসীমকে উলঙ্গকরে নির্যাতনকারী হাসান এলাকার চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী, গ্রেফতার পুরোনো মামলায়

সন্তানের সামনে জসীমকে উলঙ্গকরে নির্যাতনকারী হাসান এলাকার চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী, গ্রেফতার পুরোনো মামলায়

ভোলার লালমোহনে উলঙ্গ করে নির্যাতনের ভিডিও ভাইরাল
ভোলার লালমোহনে উলঙ্গ করে নির্যাতনের ভিডিও ভাইরাল

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে গতকাল রশি দিয়ে বেঁধে একটি লোককে পেটানোর পর পুনরায় তাকে বিবস্ত্র করে পেটানোর ভিডিও ফুটেজ ভাইরাল হয়েছে।

ঘটনাটি ঘটেছে ভোলা জেলার লালমোহন উপজেলায়। লালমোহনের ডাওরী বাজারে শত শত মানুষ সরাসরি প্রত্যেক্ষ করেছে এই দৃশ্যটি। নির্যাতিত মোটর শ্রমিকের নাম জসীম আর তাকে যে নির্যাতন করেছে ওই নির্যাতনকারীর নাম হাসান। হাসান এলাকার চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী।

ভোলা জেলার লালমোহন উপজেলার ডাওরী নামক বাজারে শত শত মানুষ ছাড়াও মোটর শ্রমিক জসীমের দুটি শিশু সন্তানের সামনেই জসীমকে উলঙ্গ করে নির্মমভাবে নির্যাতন করে। একাত্তর প্রতিনিধির মাধ্যমে জানা যায়, উপজেলার ২নং কালমা ইউনিয়নের, ২নং ওয়ার্ডের মিস্ত্রী বাড়ির আবু ড্রাইভারের ছেলে, চিহ্নিত ইয়াবা ব্যবসায়ী অস্র ও ডাকাতি মামলার নির্যাতনকারী এই হাসান।

কালমা ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা শাহার আলী বাড়ির মৃত আব্দুল মোন্নাফের ছেলে মোটরশ্রমিক জসিম উদ্দিন। এলাকার লোকজনের কাছ থেকে জানা যায় দীর্ঘদিন ধরে ইয়াবা বিক্রির জন্য নানাভাবে প্রলোভন দেখানো বা প্রস্তাব দিয়ে আসছিল হাসান।

উক্ত প্রস্তাবে জসীম কোন ক্রমেই রাজি না হওয়ায় ডাওরী বাজারে জসিমকে জনস্মুখে উলঙ্গ করে তার দুটি শিশু সন্তানের সামনে বিএনপি ও সন্ত্রাসী আখ্যা দিয়ে হাত পা বেধে মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্মমভাবে নির্যাতন করে হাসান একাই।

এরূপ একটি ঘটনায় সর্বত্র নিন্দা ও সমালোচনার ঝড় বইছে। যদিও অন্য একটি মামলায় মাদক সম্রাট হাসানকে লালমোহন থানা পুলিশ গ্রেফতার করেছে গতকাল।

জসীমকে পেটানোর সময় তার পাশেই উপস্থিত ছিল তার দুই শিশু সন্তান। মেয়ে দুটির গগনবিদারী তীব্র চিৎকারে আকাশ বাতাস চারিধার প্রকম্পিত হলেও গলেনি মাদক ব্যবসায়ী কুখ্যাত হাসানের মন। চারিপাশে লাল মোহনের হাজার লোকজন দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে তামাশা দেখেছে। হয়তোবা দু-চারজন ভিডিও করেছে। কেউ আসেনি ঘৃন্য এই নির্যাতনের প্রতিবাদ করতে। এমন বর্বরতা যেন আইয়্যামে জাহিলিয়াতকে হার মানায়।

হাসান রশি দিয়ে বেঁধে উপুর্য

পরী আঘাত করতে থাকলে জসীম অনেকটাই অচেতন হয়ে যায়। হাসান পিটাতে পিটাতে বলে “আমার নির্দেশনা মানিস না। শালা বিএনপি। শালা জঙ্গি। আমার কথা না শুনলে দ্যাখ কি পরিণতি হয়। বিএনপি করিস। তোর এতো বড় বুকের পাটা।”

জসীমকে সে এক পর্যায়ে প্যান্ট খুলে পিটাতে থাকে। জসীমের বাচ্চা মেয়ে দুটি চিৎকার করে বাবা কে ছেড়ে দিতে বললে হাসান বলে “বেশি চিল্লাবি ওরে ছাইড়া কিন্তু তোরে ধরুম। আমার চিনস? বিএনপির বাচ্চা যেন কোথাকার।” রাগে ক্ষোভে আবার-ও বেধড়ক পেটাতে থাকে হাসান।

জসীমকে এভাবে নির্যাতন করলেও লালমোহনের কোন সুধী জনকে দেখা যায়নি এর প্রতিবাদ করতে। সবাই নীরব দর্শকের ভূমিকা পালন করছিলেন। কেউ কোন কথা বলেনি। এ যেন হাসানের কাজেরই সায় দেয়া। এভাবে নির্যাতনের দৃশ্য বাংলা সিনেমরা ভিলেনদের বর্বরতাকেও ছাপিয়ে গেছে।

স্থানীয় আওয়ামী নের্তৃবর্গের সাথে যোগাযোগ করা হলে তারা বলেন “হাসান একজন মাদকসেবী, অস্রধারী সন্ত্রাসী হিসেবে সর্বজন পরিচিত। কে নিজের খেয়ে অন্যের বিপদ নিজের ঘারে আনে বলুন। হাসানের বিরুদ্ধে অভিযোগ করলে পুলিশ ব্যবস্থা নিবে। আইনানুগ প্রকৃয়ায় বিচার হবে।”

জসীম বিএনপি করে। আর এটা তার অপরাধ কি না এমন প্রশ্নের জবাবে স্থানীয় আওয়ামীলীগ এক নেতা বলেন “জসীম আওয়ামীলীগ বা বিএনপি করে সেটা আমার বা কারও দেখার বিষয় না। এটা যার যার রাজনৈতিক নিজস্ব মতামত। জসীম ভালো ছেলে। সে যথেষ্ট পরিশ্রমি। তার বাবা নেই। সে খুব কষ্ট করে তার স্ত্রী ও দুই মেয়েকে নিয়ে সংসার চালায়। তার উপর এই বর্বর নির্যাতন করা কখনোই উচিত হয়নি। এর সুষ্ঠু তদন্ত সাপেক্ষে বিচার হওয়া উচিত।”

পুলিশের সাথে যোগাযোগ করা হলে জানা যায় বিকেল পর্যন্ত হাসানের বিরুদ্ধে কোন প্রকার মামলা করেনি জসীমের পরিবার। তবে তার বিরুদ্ধে মাদক, চাঁদাবাজী, ধর্ষন, মাদক সম্পর্কিত অনেকগুলো মামলা রয়েছে। হাসান এর আগেও গ্রেফতার হয়েছিল কিন্তু জামিনে সে মুক্ত।

খবরটি শেয়ার করুন..

Comments are closed.




© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি ।
নির্মান ও ডিজাইন: সুশান্ত কুমার মোবাইল: 01748962840